হুহু করে কমেছে বিশ্ববাজারে সোনার দর

0
2

বিশ্ববাজারে গেল সপ্তাহে সোনার দাম কমেছে প্রায় তিন শতাংশ।

আর প্রতি আউন্সে কমেছে ৫০ ডলারের ওপরে। স্বর্ণের পাশাপাশি গত এক সপ্তাহে প্লাটিনাম ও রূপারও বড় দরপতন হয়েছে। তবে আপাতত দেশে

সোনার দাম কমানো হচ্ছে না।

বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতির (বাজুস) সভাপতি এনামুল হক খান বলেন, বিশ্ববাজারে সোনার বড় দরপতন হয়েছে। লকডাউনের কারণে এখন আমাদের ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ। তাই আপাতত দেশের বাজারে সোনার

দাম কমানো হচ্ছে না। লকডাউন খোলার পর আমরা এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেব।

তিনি বলেন, বিশ্ববাজারে যদি সোনার দাম আরো কমে বা এখন যে পর্যায়ে আছে, সেই পর্যায়ে থাকলে লকডাউন খুললে দেশের বাজারে দাম কমানো হবে। তবে লকডাউন খোলার আগেই যদি বিশ্ববাজারে আবার

সোনার দাম বেড়ে যায়, তখন দাম সমন্বয় করা নাও হতে পারে।

সর্বশেষ গত ১৯ জুন বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতি ভরিতে সোনার দাম ১ হাজার ৫১৬ টাকা কমানোর ঘোষণা দেয়। তবে বিশ্ববাজারে যে হারে সোনার দাম কমে তাতে বাজুস চাইলে ভরিতে স্বর্ণের দাম চার হাজার টাকা

পর্যন্ত কমাতে পারত।

বাজুসের ঘোষণা অনুযায়ী, সোনার নতুন দাম কার্যকর হয় ২০ জুন থেকে। নতুন নির্ধারিত দাম অনুযায়ী, ২২ ক্যারেটের প্রতি ভরির (১১ দশমিক ৬৬৪ গ্রাম) দাম ৭১ হাজার ৯৬৭ টাকা। এছাড়া ২১ ক্যারেটের সোনা

৬৮ হাজার ৮১৭ টাকা,

১৮ ক্যারেট ৬০ হাজার ৬৮ টাকা ও সনাতন পদ্ধতির প্রতি ভরির দাম ৪৯ হাজার ৫৪৬ টাকা। বর্তমানে এ দামেই দেশের বাজারে সোনা বিক্রি হচ্ছে।